ভোলার বকপাড়ে এক পুলিশ সদস্যকে কুপিয়ে জখম করেছে দুর্বৃত্তরা।

0
11

ভোলার বকপাড়ে এক পুলিশ সদস্যকে কুপিয়ে জখম করেছে দুর্বৃত্তরা

আশিকুর রহমান শান্ত
ভোলা প্রতিনিধি

স্ত্রীকে নিয়ে ঘুরতে গিয়ে কয়েকজন কিশোরের ইভটিজিংয়ের শিকার হয়েছেন এক পুলিশ সদস্যের স্ত্রী। এ সময় ইভটিজিং এর প্রতিবাদ করতে গেলে কিশোররা তাকে ছুরিকাঘাত করে। ছুরিকাঘাতে ঐ পুলিশ সদস্য গুরুতর আহত হন। তাৎক্ষণিক তাকে উদ্ধার করে ভোলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়।

শুক্রবার (২৩ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় ভোলা শহরের বকপাড় এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। ঘটনায় সন্দেহভাজন একজনকে আটক করেছে পুলিশ।

আহত পুলিশ সদস্যর নাম মো. এনামুল হক (২৭)। তিনি ভোলা জেলা পুলিশ লাইনে কনস্টেবল হিসেবে কর্মরত রয়েছে।

ভোলা জেলা পুলিশ সুপার সাইফুল ইসলাম (বিপিএম,পিপিএম সেবা) এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

সাইফুল ইসলাম জানান, শুক্রবার সন্ধ্যায় পুলিশ কনস্টেবল এনামুল হক তার স্ত্রীকে নিয়ে শহরের বকপাড় এলাকায় ঘুরতে যান। এ সময় দুইজন কিশোর তাদেরকে ইভটিজিং করে। এনামুল হকের স্ত্রীকে নিয়ে অশ্লীল ভাষায় গালমন্দ করেন। তখন এনামুল প্রতিবাদ করেন। একপর্যায়ে ওই দুই কিশোরের সঙ্গে এনামুলের তর্কবিতর্ক শুরু হয়। তর্কবিতর্কের একপর্যায়ে হঠাৎ করে তাদের দুইজনের সঙ্গে আরও ৪ কিশোর যুক্ত হয়ে এনামুলকে ছুরিকাঘাত করে।

ভোলার সদর হাসপাতালের আরএমও ডাক্তার নিরুপম সরকার জানান, ছুরিকাঘাতে এনামুলের শরীরের ৬ জায়গায় গুরুতর জখম হয়। তার দুই কান, গলা, বুক ও পিঠ ছুরিকাঘাতে ক্ষত হয়। আমরা তাৎক্ষণিক সকল ব্যবস্থা গ্রহণ করেছি। তবে কোনো আশঙ্কা নেই বলে জানিয়েছেন এই চিকিৎসা।

পুলিশ সুপার জানান, এ ঘটনায় সন্দেহভাজন একজনকে আটক করা হয়েছে। ঘটনাটির তদন্ত চলছে। ঘটনাস্থলের আশে পাশে থাকা সিসিটিভি ফুটেজ দেখে অভিযুক্তদের আটকের চেষ্টা চলছে।

পূর্ববর্তী খবরএবার বিপ্লব মোল্লা পেঁপে চাষে সফলতা পেতেছেন।।
পরবর্তী খবরভোলার বোরহানউদ্দিনের মাদ্রাসায় পড়ুয়া ছাত্রীকে ছাড়পত্র দিয়ে বের করে দেওয়ার অভিযোগ।